Logo
সংবাদ শিরোনাম :
মণিপুরীদের ঐতিহাসিক ‘চহি তারেৎ খুনতাকপা’ দিবস উদযাপন প্রেসক্লাব সভাপতির পুত্র শৈবালে‘র ট্যালেন্টপুলে বৃত্তি লাভ কমলগঞ্জে বোরো চাষের জন্য কৃষকের উদ্যোগে ক্রসবাঁধ নির্মাণ সিপিএসটি-২০ প্রাইজমানি ক্রিকেট টুর্ণামেন্টে হবিগঞ্জ চ্যাম্পিয়ন কিশোরকণ্ঠ মেধাবৃত্তি পরীক্ষা ২০২৩ এর ফল প্রকাশ কমলগঞ্জে ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী আটক রসুলপুরে নৌকার নির্বাচনী মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত আম্বিয়া কিন্ডারগার্টেন স্কুলে অভিভাবক দিবস পালন। কমলগঞ্জে পূর্ব শক্রতার জের ধরে হামলা; ৩ জনকে আটক করে গণপিটুনি মৌলভীবাজারে তৃণমূল পর্যায়ে সরকারি সেবার মানোন্নয়নে গণশুনানি বড়দিন উৎসবকে ঘিরে কমলগঞ্জের ৪৪টি গির্জায় চলছে প্রস্তুতি সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল মছব্বির স্মরণে আলোচনা সভা কমলগঞ্জে ভোটগ্রহণ কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণ কর্মশালা পুলিশ এসল্ট মামলায় কমলগঞ্জে যুবদল নেতা পৌর কাউন্সিলর গ্রেপ্তার কমলগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে হামলা ও লুটপাটের অভিযোগ মৌলভীবাজারের ৪টি আসনে প্রতীক বরাদ্দের পর প্রচারণায় প্রার্থীরা দ্বাদশ জাতীয় নির্বাচনে মৌলভীবাজারের ৪টি আসনে প্রতিদ্বন্ধিতা করবেন ২০ জন প্রার্থী কমলগঞ্জে যুব ফোরাম গঠন যথাযোগ্য মর্যাদায় কমলগঞ্জে ৫২ তম বিজয় দিবস উদযাপন কমলগঞ্জে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালিত

চামড়া বিক্রী করতে না পেরে মাটিতে পুতে ফেললেন

রিপোটার : / ৬৬৮ বার দেখা হয়েছে
প্রকাশিত : সোমবার, ৩ আগস্ট, ২০২০

কমলকন্ঠ রিপোর্ট ।।

অর্ধলক্ষ থেকে লক্ষাধিক টাকা মূল্যে পশু কিনে কুরবানীর পর পশুর চামড়া বিক্রি করতে না পেরে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে অনেকেই মাটিতে পুতে ফেলেছেন। ঈদের দিন শনিবার পশু কুরবানী দিয়ে কেউ কেউ চামড়া বিক্রি করেন পানির দামে। যারা গরুর চামড়া বিক্রি করতে পেরেছেন তারা ৫০ থেকে ১০০ টাকার মধ্যে। আর ছাগলের চামড়া বিক্রি ১০ টাকা করে বিক্রি করেন।
স্থানীয়রা জানান, প্রতি বছর কুরবানীর ঈদের দিন দুপুরের পর থেকে বিভিন্ন স্থান থেকে পশুর চামড়া এনে উপজেলা সদর, ভানুগাছ বাজার, শমশেরনগর, আদমপুর, পতনউষার, মুন্সীবাজারে অপেক্ষমান চামড়ার ক্রেতাদের কাছে ভালো দামে বিক্রি করা হতো। এবছর গ্রাম থেকে বাজারে চামড়া নিয়ে এসে ক্রেতা খোঁজে পাওয়া যায়নি। কমলগঞ্জ পৌরসভার নছরতপুর গ্রামের জামি আহমেদ বলেন, চামড়ার বাজারের পরিস্থিতি জেনে তিনি মাটির গর্তে পুতে ফেলেন। শমশেরনগরের শিংরাউলী গ্রামের নজরুল ইসলাম, পতনউষারের আলমগীর বলেন, বাজারের অবস্থা জেনেই গরুর চামড়া মাটির গর্তে পুতে ফেলেছেন। শমশেরনগরের শিংরাউলী গ্রামের ফজু মিয়া বলেন, ঈদের দিন ৫০ টাকার রিক্সা ভাড়া দিয়ে একটি বাসার দুটি গরুর চামড়া নিয়ে বাজারে বিক্রি করেছেন মাত্র ৬০ টাকায়।
চামড়া বিক্রেতারা বলেন, আগে মাদ্রাসায় চামড়া দিয়ে দেয়া হত। এবার চামড়ার বাজার খারাপ থাকায় কোন মাদ্রাসাও চামড়া গ্রহন করেনি। শমশেরনগরের একটি মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা মো. মতিউর রহমান বলেন, চামড়া গ্রহন করে প্রাথমিকভাবে তা সংরক্ষনের পর লোকসানে বিক্রি করতে হবে। তাই আগে থেকে মসজিদে নামাজের সময় জানানো হয়েছিল এবার কুরবানীর পশুর চামড়া তারা গ্রহন করবেন না।
কমলগঞ্জ উপজেলা সদরের চামড়া ব্যবসায়ী হোসেন মিয়া জানান, তিনি ৫০ টাকা থেকে শুরু করে সাইজ বুঝে ১৫০ টাকা দিয়ে প্রতিটি গরুর চামড়া কিনেছেন। এ বছর ৩ থেকে ৪শ’ চামড়া কিনেছেন। কেনা চামড়াগুলো প্রাথমিকভাবে লবন দিয়ে সংরক্ষণ করে রেখেছেন। চামড়া বিক্রেতারা আশঙ্কা প্রকাশ করে বলেন, কেনা চামড়াগুলো এখনও ঢাকার চামড়া ব্যবসায়ীদের কাছে বিক্রি করতে পারেননি। সময়মত ঢাকার চামড়া ব্যবসায়ীদের কাছে বিক্রি করতে না পারলে তারা বড় ধরণের লোকসান গুনতে হবে।


আরো সংবাদ পড়ুন...
Developed By Radwan Ahmed