Logo
সংবাদ শিরোনাম :
কমলগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে বিজয়ী হলেন যারা টানা বর্ষনে কমলগঞ্জে বন্যা :: বিস্তীর্ণ এলাকা প্লাবিত :: ব্যাপক ক্ষতি মণিপুরীদের ঐতিহাসিক ‘চহি তারেৎ খুনতাকপা’ দিবস উদযাপন প্রেসক্লাব সভাপতির পুত্র শৈবালে‘র ট্যালেন্টপুলে বৃত্তি লাভ কমলগঞ্জে বোরো চাষের জন্য কৃষকের উদ্যোগে ক্রসবাঁধ নির্মাণ সিপিএসটি-২০ প্রাইজমানি ক্রিকেট টুর্ণামেন্টে হবিগঞ্জ চ্যাম্পিয়ন কিশোরকণ্ঠ মেধাবৃত্তি পরীক্ষা ২০২৩ এর ফল প্রকাশ কমলগঞ্জে ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী আটক রসুলপুরে নৌকার নির্বাচনী মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত আম্বিয়া কিন্ডারগার্টেন স্কুলে অভিভাবক দিবস পালন। কমলগঞ্জে পূর্ব শক্রতার জের ধরে হামলা; ৩ জনকে আটক করে গণপিটুনি মৌলভীবাজারে তৃণমূল পর্যায়ে সরকারি সেবার মানোন্নয়নে গণশুনানি বড়দিন উৎসবকে ঘিরে কমলগঞ্জের ৪৪টি গির্জায় চলছে প্রস্তুতি সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল মছব্বির স্মরণে আলোচনা সভা কমলগঞ্জে ভোটগ্রহণ কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণ কর্মশালা পুলিশ এসল্ট মামলায় কমলগঞ্জে যুবদল নেতা পৌর কাউন্সিলর গ্রেপ্তার কমলগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে হামলা ও লুটপাটের অভিযোগ মৌলভীবাজারের ৪টি আসনে প্রতীক বরাদ্দের পর প্রচারণায় প্রার্থীরা দ্বাদশ জাতীয় নির্বাচনে মৌলভীবাজারের ৪টি আসনে প্রতিদ্বন্ধিতা করবেন ২০ জন প্রার্থী কমলগঞ্জে যুব ফোরাম গঠন

শিক্ষার্থীদের অধিকার সুরক্ষার দাবীতে সিলেটে স্মারকলিপি প্রদান

রিপোটার : / ৭৬১ বার দেখা হয়েছে
প্রকাশিত : রবিবার, ২১ জুন, ২০২০

কমলকন্ঠ রিপোর্ট ।।

দেশব্যাপী চলমান করোনা মহামারীর এই দুঃসময়ে সরকারী-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের বেতন মওকুফ ও অধিকার সুরক্ষার দাবীতে শিক্ষা সচিব বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান করেছে সিলেট জেলা ও মহানগর ছাত্রদল। কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে রোববার (২১ জুন) দুপুরে সিলেটের জেলা প্রশাসক কাজী ইমদাদুল হকের কাছে এই স্মারকলিপি প্রদান করেন তারা। জেলা প্রশাসকের পক্ষে উক্ত স্মারকলিপি গ্রহণ করেন জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের জারি কারক মো. শাহ আলম।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, সিলেট জেলা ছাত্রদলের সভাপতি আলতাফ হোসেন সুমন, মহানগর ছাত্রদলের সভাপতি সুদীপ জ্যোতি এষ ও সাধারণ সম্পাদক ফজলে রাব্বী আহসান, জেলা ছাত্রদলের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন নাদিম, মহানগর ছাত্রদলের সিনিয়র সহ-সভাপতি তোফায়েল আহমদ, যুগ্ম সম্পাদক হোসাইন আহমদ, জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম সম্পাদক আব্দুস সামাদ লস্কর মুনিম, যুগ্ম সম্পাদক আলী আকবর রাজন ও ছাত্রদল নেতা জয়নাল আবেদীন রাহেল প্রমুখ।

শিক্ষা সচিব বরাবরে পেশ কৃত স্মারকলিপিতে সিলেট জেলা ও মহানগর ছাত্রদল নেতৃবৃন্দ বলেন, প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল সাধারণ শিক্ষার্থীদের সকল যৌক্তিক দাবীর পক্ষে স্বোচ্ছার ছিল, আছে এবং ভবিষ্যতেও থাকবে। করোনাভাইরাসের কারণে দুই মাসেরও অধিক সময় ধরে দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। এই অবস্থা শুধু বাংলাদেশ নয়, গোটা বিশ্বেই চলমান রয়েছে। দীর্ঘমেয়াদী লকডাউনের কারণে শুধু বাংলাদেশ নয়, বিশ্ব অর্থনীতি আজ স্থবির হয়ে পড়েছে। এই ক্রান্তিলগ্নে শিক্ষার্থীদের পড়ালেখার খরচ চালানো সকল অভিভাবকের জন্য কষ্টকর হয়ে দাঁড়িয়েছে। বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে শিক্ষার্থীদের প্রতি সদয় হয়ে সরকারী-বেসরকারি সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের বেতনাদি মওকুফ করতে পারলে তা হতে পারে মানবতার জন্য এক উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত।

স্মারকলিপিতে নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, সরকারী-বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়, স্কুল ও কলেজ পর্যায়ে টেলিভিশন ও অনলাইনে কিছুটা কার্যক্রম চালু থাকলেও সেটি সবার কাছে পৌছাচ্ছেনা। কিন্তু পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় ও জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীন দুই হাজারেরও বেশী কলেজ এর বাইরে রয়েছে। এক জরিপে দেখা গেছে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে অনলাইনে ক্লাস চালানো সম্ভব নয়। এমনকি বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়ের অনেক শিক্ষার্থীও অনলাইনে ক্লাসে যুক্ত হওয়ার সংগতি নেই। পরিস্থিতি বিবেচনায় এই মুহূর্তে সকল প্রতিষ্ঠানের অনলাইনে ক্লাস, ভর্তি ও পরীক্ষা বন্ধ রাখার দাবী জানাচ্ছে ছাত্রদল। করোনা পরিস্থিতিতে যেসকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সরকারী রাজস্ব থেকে বেতন পায়না, এমনকি এসব প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ শিক্ষার্থীদের বেতনের উপর নির্ভরশীল ঐসব প্রতিষ্ঠানের ঘাটতি সরকারী বরাদ্দ থেকে পূরণের আহ্বান জানিয়েছে তারা। অসচ্ছল শিক্ষার্থীদের শিক্ষাজীবন চালু রাখার স্বার্থে তাদের পরিবারসমুহকে আর্থিক অনুদান প্রদান করা উচিত। করোনা পরিস্থিতি গতি কিছুটা শিথিল হলে ভয়, শঙ্কা ও উদ্বেগকে পেছনে টেলে স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করতে এবং সেশন জট সামাল দিতে একটি পরিকল্পিত সমন্বিত উদ্যোগের মাধ্যমে শিক্ষা কার্যক্রম শুরুর দিকে এগিয়ে যাওয়াটা সমীচীন বলে ছাত্রদল মনে করে। সামগ্রিক পরিস্থিতি বিবেচনায় সাধারণ শিক্ষার্থীদের উপরোল্লিখিত দাবী সমূহ মেনে নেয়ার জন্য সরকারের শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও সংশ্লিষ্ট বিভাগের প্রতি জোর দাবী জানান তারা।


আরো সংবাদ পড়ুন...
Developed By Radwan Ahmed